মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ০৪:৩৫ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম:
লক্ষ্মীপুরে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কম্পিউটার ও ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণ লক্ষ্মীপুর পৌরসভার সম্ভাব্য মেয়র প্রার্থী আব্দুল মতলব’র ব্যাপক গণসংযোগ রায়পুরে বেদে ও অনগ্রসর জনগোষ্ঠীর শিক্ষার্থীদের মাঝে ১৫ লাখ টাকার চেক বিতরণ রায়পুরে নবনির্মিত শহীদ মিনার উদ্বোধন করলেন নুরউদ্দিন চৌধুরী নয়ন এমপি রায়পুর উপজেলা ডিজিটাল সেন্টার উদ্বোধন করেন এড. নয়ন এমপি রায়পুরে করোনা আক্রান্তদের মাঝে অক্সিজেন সিলিন্ডার বিতরণ উদ্বোধন শোক দিবসে লক্ষ্মীপুরে আওয়ামী লীগের আলোচনা সভা ও দোয়া লক্ষ্মীপুরে বিভিন্ন ইউনিয়নে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি উপহার দিলেন নুরউদ্দিন চৌধুরী নয়ন এমপি রায়পুর হাসপাতালে করোনা রোগীদের জন্য অক্সিজেন সিলিন্ডার হস্তান্তর রায়পুরে ক্ষতিগ্রস্থ উদ্যোক্তাদের মাঝে প্রধানমন্ত্রীর প্রনোদনার চেক বিতরণ

পরীক্ষা ছাড়া অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত সব শিক্ষার্থী পাস

আন্তর্জাতিক ডেক্স / ৫৩৫ পড়া হয়েছে:
প্রকাশের সময়: মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ০৪:৩৫ পূর্বাহ্ন

আর কোনো ক্লাস করতে হবে না। পরীক্ষাও দিতে হবে না। চলতি শিক্ষাবর্ষে প্রথম শ্রেণি থেকে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত সব শিক্ষার্থীকে পাস করিয়ে দেয়া হয়েছে। কাউকেই ফেল করানো হয়নি। সবাইকে পরবর্তী শ্রেণিতে উত্তীর্ণ করা হয়েছে।
বৃহস্পতিবার ভারতের পশ্চিমবঙ্গের শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় এ ঘোষণা দিয়েছেন বলে জানিয়েছে সংবাদমাধ্যম আনন্দবাজার।এমন অদ্ভুত ঘোষণার পেছনে চলমান করোনা পরিস্থিতিই একমাত্র কারণ বলে জানা গেছে।
শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেছেন,শিক্ষা দফতর থেকে এ সিদ্ধান্ত এসেছে, যে যেখানেই থাকুক এবার প্রথম শ্রেণি থেকে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত রাজ্যের সব শিক্ষার্থীকে পাস বলে গণ্য হয়েছে। পরের ক্লাসে তারা উত্তীর্ণ হবে। এ ব্যাপারে বিপরীত কোনো মন্তব্য চলবে না।
তবে নবম, দশম, একাদশ, দ্বাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থীদের ক্ষেত্রে এ নিয়ম প্রযোজ্য নয় বলে জানিয়েছেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়।
তিনি বলেন, এ ক্ষেত্রে প্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়ে কীভাবে পড়াশোনা চালানো যায়, তা নিয়ে শিক্ষা দফতর চিন্তা-ভাবনা করছে। এ ক্ষেত্রে ইন্টারনেট, ই-মেইল, ভিডিও কনফারেন্স করে তাদের শিক্ষা ব্যবস্থা চালিয়ে নেয়া হবে। আনন্দবাজার জানিয়েছে, শিক্ষা দফতর এমন সিদ্ধান্ত এখন রাজ্য সরকারের চূড়ান্ত অনুমোদন পাওয়ার অপেক্ষা রয়েছে। পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় অনুমোদন দিলেই সিদ্ধান্তটি কার্যকর হবে। এমন সিদ্ধান্তের বিষয়ে রাজ্য শিক্ষা দফতর ব্যাখ্যা দিয়েছে। তা হল,চলমান করোনা পরিস্থিতিতে ভারতে ২১ দিনের লকডাউন চলছে। এ লকডাউন সময় আরও বাড়তে পারে। এতে স্কুল-কলেজ কতদিন বন্ধ থাকবে তা কারো জানা নেই। এ দিকে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার নির্দেশনায় শিক্ষার্থীরা ঘরে বসেও পড়ালেখা করতে পারছে না। সেই পরিস্থিতিতে শিক্ষার্থীদের পরীক্ষা নেয়া ঠিক নয়। তাই রাজ্য সরকার এই শিক্ষাবর্ষে কাউকে এক ক্লাসে না রেখে পরীক্ষা ছাড়াই উত্তীর্ণ করে দিয়েছে।