সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২:৫৮ অপরাহ্ন

শিরোনাম:
লক্ষ্মীপুর পৌরসভার সম্ভাব্য মেয়র প্রার্থী আব্দুল মতলব’র ব্যাপক গণসংযোগ রায়পুরে বেদে ও অনগ্রসর জনগোষ্ঠীর শিক্ষার্থীদের মাঝে ১৫ লাখ টাকার চেক বিতরণ রায়পুরে নবনির্মিত শহীদ মিনার উদ্বোধন করলেন নুরউদ্দিন চৌধুরী নয়ন এমপি রায়পুর উপজেলা ডিজিটাল সেন্টার উদ্বোধন করেন এড. নয়ন এমপি রায়পুরে করোনা আক্রান্তদের মাঝে অক্সিজেন সিলিন্ডার বিতরণ উদ্বোধন শোক দিবসে লক্ষ্মীপুরে আওয়ামী লীগের আলোচনা সভা ও দোয়া লক্ষ্মীপুরে বিভিন্ন ইউনিয়নে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি উপহার দিলেন নুরউদ্দিন চৌধুরী নয়ন এমপি রায়পুর হাসপাতালে করোনা রোগীদের জন্য অক্সিজেন সিলিন্ডার হস্তান্তর রায়পুরে ক্ষতিগ্রস্থ উদ্যোক্তাদের মাঝে প্রধানমন্ত্রীর প্রনোদনার চেক বিতরণ রায়পুর হাসপাতালে অক্সিজেন সিলিন্ডার ও অক্সিমিটার বিতরণ করলেন এমপি নয়ন

মাদারীপুরের কালকিনি ও রাজৈর উপজেলা লকডাউন

জেলা সংবাদদাতা / ৪৯৯ পড়া হয়েছে:
প্রকাশের সময়: সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২:৫৮ অপরাহ্ন

মাদারীপুর জেলায় এ প্রর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে পাঁচজনের শরীরে করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে শিবচর উপজেলায় তিনজন এবং কালকিনি ও রাজৈর উপজেলায় পৃথক দুইজন। রাতেই কালকিনি ও রাজৈর উপজেলাকে লকডাউন করা হয়েছে প্রশাসন।

শিবচর আগে থেকেই ছিলো অনির্দিষ্ট কালের জন্য লকডাউন। এ নিয়ে মাদারীপুর জেলায় মোট করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ১৮ জনে দারিয়েছে।

জেলার সিভিল সার্জন ও জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা যায়, গত এক সপ্তাহে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত সন্দেহে ১১০ জনের নমুনা ঢাকার আইইডিসিআরে পাঠানো হয়েছিলো। এর মধ্যে ৭৬টির প্রতিবেদন এসেছে। এর মধ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় ৩৬ জনের নমুনা সংগ্রহ করে ৫ জনের শরীরে করোনা ভাইরাস ‘পজিটিভ’ পাওয়া গেছে।

এ ছাড়া কালকিনি ও রাজৈর উপজেলায় প্রথমবারের মতো করোনায় আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে। তারা দুজনই ঢাকা থেকে এসেছেন। মাদারীপুরের সিভিল সার্জন সফিকুল ইসলাম লক্ষ্মীপুর আলোকে বলেন, ‘নতুন পাঁচজনই আক্রান্ত ব্যক্তিদের সংস্পর্শে এসে তারা আক্রান্ত হয়েছেন। তাঁদের নিজ নিজ উপজেলায় স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আইসোলেশন ওয়ার্ডে আনার জন্য প্রক্রিয়া চালাচ্ছে প্রশাসন। রাতেই তাঁদের আইসোলেশন ওয়ার্ডে ভর্তি করে চিকিৎসাসেবা দেওয়া হবে বলে যানা যায়।’

জানতে চাইলে জেলা প্রশাসক মো. ওয়াহিদুল ইসলাম বলেন, ‘কালকিনি ও রাজৈর উপজেলায় প্রথম করোনায় ক্রান্ত রোগী শনাক্ত হওয়ায় ওই উপজেলা দুইটিকেই লকডাউন করতে ইউএনওদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। আর শিবচর উপজেলা আগে থেকেই লকডাউন করা ছিলো সেটা বহাল আছে। যেহেতু নতুন করে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তর রোগী বাড়ছে, সেহেতু আগামীকাল মাদারীপুর জেলার করোনা প্রতিরোধ কমিটির সভা ডাকা হয়েছে। সেই সভায় পুরো মাদারীপুর জেলাকে লকডাউনের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন।

 

মোঃ ইব্রাহীম রহমান অন্ত, মাদারীপুর।

Print Friendly, PDF & Email